হেফাজত নেতা মামুনুল ও স্ত্রীর ফোনালাপ ফাঁস

73

>>আল্লাহর কসম উনি আমার দ্বিতীয় স্ত্রী-মামুনুল হক
>>স্ত্রীর দাবি ধৃত নারী জনৈক জাফর শহীদুল ইসলামের স্ত্রী
এবিসি ডেস্ক:
নারায়ণগঞ্জে নারীসহ রিসোর্ট থেকে এক নারীসহ আটক হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হককে ছিনিয়ে নিয়েছে সংগঠনটির নেতাকর্মীরা। জনতার হাতে পাকড়াও মামুনুল হক বলেন আল্লাহ’র কসম উনি (ধৃত নারী) আমার দ্বিতীয় স্ত্রী। যদিও এরই মধ্যে তার স্ত্রী ফাঁস করেন ধৃত নারী জনৈক জাফর শহীদুল ইসলামের স্ত্রী। সূত্র:একাত্তর টিভি

এদিকে ঘটনার পর মামুনুল হক তার স্ত্রীকে ফোন করে বলেন, কেউ জানতে চাইলে বলবে ধৃত নারী আমার দ্বিতীয় স্ত্রী। তাঁর এই ফোনালাপ ফাঁসের পর তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে।

শনিবার (৩ এপ্রিল) নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও পৌরসভাধীন পানামসিটি’র রয়াল রিসোর্ট থেকে তাকে আটক করার খবর পেয়ে সন্ধ্যার দিকে সেখানে ছুঁটে যায় হেফাজতের কয়েক হাজার কর্মী।

এসময় তারা মামুনুল হককে মুক্ত ছিনিয়ে নেয় এবং রিসোর্টে ভাঙচুর চালান। পরে মিছিল সহকারে হেফাজতের এই কেন্দ্রীয় নেতাকে নেয়া হয় সোনারগাঁওয়ের মোগড়াপাড়া চৌরাস্তায়। সেখানেও হেফাজতের কর্মীরা দোকানপাটে ভাঙচুর চালায় বলে স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে।

আরও পড়ুন: নারীসহ হেফাজতের মামুনুল হক আটক

এর আগে এদিন বিকেলে সাড়ে তিনটার দিকে সোনারগাঁও পৌরসভাধীন পানামসিটি’র রয়াল রিসোর্টের ৫ম তলার ৫০১ নম্বর কক্ষ থেকে মাওলানা মামুনুল হককে নারীসহ অবরুদ্ধ করেন স্থানীয়রা। এসময় তিনি ওই নারীকে নিজের স্ত্রী বলে দাবি করেন। পরে খবর পেয় ঘটনাস্থলে যান পুলিশ।

সর্বশেষ একাত্তর টিভিতে মামুনুল ও তার স্ত্রীর ফোনালাপের ভিডিও প্রচার করা হয়েছে। সেখানে শোনা যাচ্ছে মামুনুল হক তার স্ত্রীকে বলছেন, কেউ জানতে চাইলে তুমি বললে ধৃত নারী আমার দ্বিতীয় স্ত্রী। জবাবে স্ত্রী বলেন ঠিক আছে।