হেফাজতের দুই নেতা ফের রিমান্ডে

62

হেফাজতে ইসলামের সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক ও বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা আতাউল্লাহ আমীনের আবার ছয় দিনের রিমান্ড মন্জুর করেছেন আদালত। একইসঙ্গে হেফাজতে ইসলামের ঢাকা মহানগরী কমিটির সহ-দফতর সম্পাদক ও ইসলামী ছাত্র সমাজের সেক্রেটারি মাওলানা এহেতাসামুল হক সাখী বিন জাকিরকে আরও দুই দিনের রিমান্ডে পাঠানো হয়েছে।

বুধবার (২৮ এপ্রিল) মামলার তদন্ত কর্মকর্তা পল্টন থানার মামলায় পাঁচ দিনের রিমান্ড শেষে মাওলানা আতাউল্লাহ আমীনকে ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট বাকী বিল্লাহর আদালতে হাজির করেন। এরপর ২০১৩ সালের ঘটনায় মতিঝিল ও পল্টন থানার দুই মামলায় তাকে গ্রেফতার দেখানোর আবেদনসহ মতিঝিল থানার মামলায় ১০ দিন ও পল্টন থানার মামলায় সাত দিনের রিমান্ড আবেদন করেন। পরে আদালত দুই মামলায় তার তিন দিন করে মোট ছয় দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। আদালতের সংশ্লিষ্ট থানার সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা (জিআর) শাখা এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে গত ২২ এপ্রিল তার পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট বাকী বিল্লাহর আদালত। ২১ এপ্রিল মধ্যরাতে তাকে রাজধানীর মোহাম্মদপুর জামিয়া রাহমানিয়া আরাবিয়া মাদ্রাসা থেকে গ্রেফতার করা হয়।

এদিকে চারদিনের রিমান্ড শেষে একই আদালতে মাওলানা এহেতাসামুল হক সাখী বিন জাকিরকে হাজির করে পুলিশ। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ২০১৩ সালের পল্টন থানার হেফাজতের তাণ্ডবের ঘটনায় দায়ের করা মামলায় তাকে গ্রেফতার দেখানোর আবেদনসহ তার সাত দিনের রিমান্ড চেয়ে আবেদন করেন। আদালত তার আবেদন মন্জুর করে দুই দিনের রিমান্ডের আদেশ দেন।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার (২২ এপ্রিল) বিকালে রাজধানীর আরমানিটোলা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

উল্লেখ্য, ২০১৩ সালের ৫ মে ঢাকা অবরোধ করে হেফাজতে ইসলামের নেতাকর্মীরা। এ অবরোধ কর্মসূচির নামে লাঠিসোটা, ধারালো অস্ত্র ও আগ্নেয়াস্ত্র নিয়ে রাজধানীর মতিঝিল, পল্টন ও আরামবাগসহ আশপাশের এলাকায় যানবাহন ও সরকারি-বেসরকারি স্থাপনায় ব্যাপক ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ করে হেফাজতের কর্মীরা। এ ঘটনায় পল্টন ও মতিঝিল থানায় হেফাজতের নেতাদের বিরুদ্ধে একাধিক মামলা করা হয়।