শেখ হাসিনাকে হত্যাচেষ্টা:১০ আসামির মৃত্যুদন্ড হাইকোর্টেও বহাল

17

এবিসি ডেস্ক:প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যাচেষ্টা মামলায় নিম্ন আদালতে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত ১০ আসামির ফাঁসির আদেশ হাইকোর্টও বহাল থাকায় সন্তোশ প্রকাশ করেছেন গোপালগঞ্জের সাধারণ মানুষ। রায় ঘোষণার কোটালীপাড়ায় আনন্দ মিছিল ও মিষ্টি বিতরণ করা হয়েছে।

বুধবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) রায় ঘোষণার সঙ্গে সঙ্গে উপজেলা আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে আনন্দ মিছিল বের হয়। মিছিলটি উপজেলা পরিষদ চত্ত্বর থেকে শুরু হয়ে শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে দলীয় কার্যালয়ে এসে পথসভায় মিলিত হয়। পথসভা শেষে উপজেলা সদরে দলীয় নেতাকর্মী ও সাধারণ জনগণের মাঝে মিষ্টি বিতরণ করেন।

সভায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ভবেন্দ্রনাথ বিশ্বাস, সাধারণ সম্পাদক আয়নাল হোসেন শেখ, পৌর মেয়র হাজি মো. কামাল হোসেন শেখ, জেলা পরিষদ সদস্য দেবদুলাল বসু পল্টু, ইউপি চেয়ারম্যান কামরুল ইসলাম বাদল, আওয়ামী লীগ নেতা আলাউদ্দিন হাওলাদার, রুহুল আমিন খান, উপজেলা স্বেচ্ছসেবক লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বাবলু হাজরা, সাবেক ছাত্রনেতা মিজানুর রহমান বুলবুল, যুবলীগ নেতা বুলবুল আহমেদ হাজরা বক্তব্য রাখেন।

উল্লেখ্য, ২০০০ সালের ২২ জুলাই গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ায় শেখ লুৎফর রহমান সরকারি আদর্শ কলেজ মাঠে জনসভা করার কথা ছিল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার। ওই দিন জনসভাস্থল থেকে ৭৬ কেজি ওজনের একটি বোমা উদ্ধার করা হয়। পরদিন ২৩ জুলাই আরও একটি শক্তিশালী বোমা হ্যালিপ্যাডের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়।

এ ঘটনায় ওইদিনই কোটালীপাড়া থানার পুলিশ হত্যা চেষ্টা এবং বিস্ফোরক দ্রব্য আইনে দুটি মামলা করে। দীর্ঘ শুনানির পর আদালত ২০১৭ সালের ২০ আগস্ট দুই মামলার একটিতে ১০ আসামিকে মৃত্যুদণ্ড দেন। গত ১৬ সেপ্টেম্বর এ মামলার আপিল শুনানি শুরু হয়। ১ ফেব্রুয়ারি শুনানি শেষে রায়ের জন্য বুধবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) দিন ধার্য করা হয়।