শর্ত সাপেক্ষে যবিপ্রবির শিক্ষকরা কর্মে যোগ দিতে সম্মত

এবিসি বাংলা ডেস্কএবিসি বাংলা ডেস্ক
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  08:09 PM, 11 March 2019

এবিসি নিউজ: অচলাবস্থা থেকে বেরিয়ে আসতে কিছু দাবিদাওয়া ও শর্তসাপেক্ষে আগামীকাল মঙ্গলবার  থেকে ক্লাস পরীক্ষাতে ফিরতে সম্মত হয়েছেন যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি) শিক্ষকরা। আজ ১১ মার্চ সোমবার শিক্ষক সমিতির সাধারণ সভায় এই সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। পড়ুন>>>রাজনীতিমুক্ত যবিপ্রবিতে বিপুল পরিমাণ অস্ত্র উদ্ধার

শিক্ষক সমিতির ৩য় সাধারণ সভা শেষে শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. ইকবাল কবির জাহিদ ও সাধারণ সম্পাদক ড. নাজমুল হাসান স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য এবং রিজেন্ট বোর্ডের সদস্যবৃন্দ রেজিস্ট্রার কর্তৃক গত ৪ মার্চ প্রেরিত চিঠির মাধ্যমে পুনঃ অনুরোধ ও ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠার প্রতিশ্রুতি দিলে আজ সোমবার শিক্ষক সমিতির সভায় আগামীকাল ১২ মার্চ থেকে আগামী রিজেন্ট বোর্ড পর্যন্ত সকল প্রকার এ্যাকাডেমিক কার্যক্রম চালু থাকবে।

কিন্তু আগামী রিজেন্ট বোর্ডে ন্যায়বিচার না পেলে আগামী মে মাসে অনুষ্ঠিত সেমিস্টার ফাইনাল পরীক্ষাসহ সকল প্রকার এ্যাকাডেমিক কার্যক্রম বন্ধ করার কঠোর হুঁশিয়ারিও দেন তারা।

উল্লেখ্য, ৮ ও ৯ জানুয়ারি র‍্যাগিং বিরোধী ব্যানার ছিড়ে ফেলাকে কেন্দ্র করে শিক্ষক ও বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাথে ঝামেলার সৃষ্টি হয়। এর প্রতিবাদ জানায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক কর্মকর্তা কর্মচারীরা। অন্যদিকে ছাত্রলীগকে কটূক্তি ও প্রধানমন্ত্রীকে কটূক্তি করার কারনে অভিযুক্ত শিক্ষক অধ্যাপক ড. ইকবাল কবির জাহিদ ও প্রশাসনের বিরুদ্ধে পাল্টা কর্মসূচি দেয় বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ।

পরবর্তীতে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি ইকবাল কবির জাহিদকে ফোনে প্রাণনাশের হুমকির অভিযোগ ওঠে। এ ঘটনার প্রতিবাদে ১২ জানুয়ারি বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে শিক্ষক কর্মকর্তা-কর্মচারীরা মানববন্ধন কর্মসূচির আয়োজন করে। সেখানে হামলা চালিয়ে মানববন্ধন কর্মসূচিতে বাধা দেয়া হয়।

এর প্রতিবাদে শিক্ষক সমিতি দীর্ঘদিন ধরেই ক্লাস পরীক্ষা বর্জনসহ বিভিন্ন ধরনের কর্মসূচি পালন করে আসছিলেন। যেকারণে বিশ্ববিদ্যালয়ে এক ধরনের স্থবিরতা বিরাজ করে আসছিল। সৃষ্টি হয়েছিল অচলাবস্থার। অবশেষে সংকট উত্তরণের পথে যবিপ্রবি।

খুলনা বিভাগ

আপনার মতামত লিখুন :