যশোরে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ:অভিযুক্ত অস্ত্র-গুলিসহ আটক

17

ঝিকরগাছা(যশোর)প্রতিনিধি:ঝিকরগাছায় ১০ম শ্রেণীর এক ছাত্রীকে অস্ত্রেরমুখে অপহরণের পর রাতভর ধর্ষণের ঘটনায় অভি ইসলাম প্রান্ত (২৬) নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তার স্বীকারোক্তিতে একটি পিস্তল উদ্ধার হয়েছে বলেও দাবি করেছে পুলিশ।

পুলিশ সূত্র জানায়, শনিবার (১৬ জানুয়ারি) রাতে নির্যাতিতা শিক্ষার্থীর মা ঝিকরগাছা থানায় মামলা করেন। তারপর শুরু হয় পুলিশের অভিযান। ১৭ জানুয়ারি রাতে মামলার আসামি প্রান্তকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতার হওয়া অভি ইসলাম প্রান্ত যশোর সদর উপজেলার পুরাতন কসবা এলাকার মৃত শফিকুল ইসলামের ছেলে। তিনি ঝিকরগাছা পৌর শহরের কৃষ্ণনগর গ্রামে তার মামা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক কাজল রায়হানের বাড়িতে বসবাস করেন।

গত বৃহস্পতিবার (১৪ জানুয়ারি) দুপুরে নির্যাতিতা শিক্ষার্থী প্রাইভেট পড়তে যাওয়ার সময় তাকে অস্ত্রের মুখে জিম্বি করে মোটরসাইকেলে করে তার যশোর শহরে বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে অস্ত্রের মুখে তাকে ধর্ষণ করা হয় এবং ধর্ষণের ভিডিও ধারণ করা হয়। ঘটনাটি কাউকে জানানো হলে ধর্ষণের ভিডিও ইন্টারনেটে ছেড়ে দেয়া হবে বলেও হুমকি দেয় অভিযুক্ত প্রান্ত।
ঘটনার একদিন পর শনিবার রাতে ওই শিক্ষার্থীর মা ঝিকরগাছা থানায় লিখিত অভিযোগ দেন। অভিযোগটি মামলা হিসেবে গ্রহণ করে ১৭ জানুয়ারি রাতে অভিযান চালিয়ে আসামি অভি ইসলাম প্রান্তকে গ্রেফতার করে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। এছাড়া নির্যাতিত শিক্ষার্থীর জবানবন্দি রেকর্ড করেছে আদালত।
ঝিকরগাছা থানার ওসি আব্দুর রাজ্জাক জানান, ঝিকরগাছা বাঁকড়া এলাকা থেকে রবিবার রাতে আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তার দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে কাঁটাখাল পৌর পার্ক থেকে একটি দেশীয় পিস্তল ও এক রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়েছে। এছাড়া আসামির কাছ থেকে একটি কাগজপত্রবিহীন মোটরসাইকেল উদ্ধার করা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে ঝিকরগাছা থানায় চাঁদাবাজি, অস্ত্র ও মাদকসহ মোট ১৬টি মামলা রয়েছে।