যবিপ্রবিতে রক্তদান কর্মসূচি রুপ নিয়েছিল মিলন মেলায়

এবিসি বাংলা ডেস্কএবিসি বাংলা ডেস্ক
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  12:54 AM, 28 March 2019

এবিসি নিউজ:যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. আনোয়ার হোসেন বলেছেন, আলোকিত মানুষ হতে হলে শুধু প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা অর্জনই যতেষ্ট না। সামাজিক দায়বদ্ধতাও থাকতে হবে। মানবিক গুণাবলী অর্জন না করলে প্রাতিষ্ঠানিক এই শিক্ষার কোনো দাম নেই।
২৭ মার্চ বুধবার দুপুরে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষে যবিপ্রবির অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস ক্লাব আয়োজিত রক্তদান কর্মসূচির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

রক্তদান কর্মসূচিতে প্রায় ৪৭০ জন স্বেচ্ছায় রক্তদাতা নিবন্ধন করেন। শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা-কর্মচারীদের স্বতস্ফূর্ত অংশগ্রহণে রক্তদান কর্মসূচি যেন মিলনমেলার রুপ নেয়।
শিক্ষার্থীদের মানবিক গুণাবলী করে গড়ে তোলার উপর জোর দিয়ে অধ্যাপক ড. আনোয়ার হোসেন বলেন, কেউ জীবন-মৃত্যুর সন্ধিক্ষণে থাকলে তখন তার রক্তের প্রয়োজন হয়। জীবনকে বাঁচানোর সময়কার দানই শ্রেষ্ঠ দান। তোমরা নিজেদের সবচেয়ে মানবিক গুণাবলী সমৃদ্ধ করে গড়ে তুলবে, এটাই আমাদের চাওয়া।
বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির যশোরের ইউনিটের সাধারণ সম্পাদক ও যশোর প্রেসক্লাবের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন বলেন, রক্ত দিলে মানুষের শরীর অনেক হালকা লাগে। শরীরের কোনো ক্ষতিই হয় না। অথচ এরফলে একজন বিপন্ন মানুষের জীবন রক্ষা পায়। রক্ত দেয়া কোন ভয়ের ব্যাপার না। বরং রাষ্ট্র ও সমাজের প্রতি নাগরিকের দায়বদ্ধতা পালন করা। েএকই সাথে নিজের শরীর ও মন দুটোকেই ভাল রাখা যায় রক্তদানের মাধ্যমে।
অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ কামাল হোসেনের সভাপতিত্বে রক্তদান কর্মসূচির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন যবিপ্রবি শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ড. নাজমুল হাসান, মার্কেটিং বিভাগের চেয়ারম্যান ড. মেহেদী হাসান, ফাইন্যান্স অ্যান্ড ব্যাংকিং বিভাগের চেয়ারম্যান ড. মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম, অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগের সহকারী অধ্যাপক সৌরভ চন্দ্র তালুকদার, তরুন সেন প্রমুখ। অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো: আবদুস সালাম। রক্তদান কর্মসূচি বাস্তবায়নে সার্বিকভাবে সহযোগিতা করছে বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির যশোর ইউনিট।

খুলনা বিভাগ

আপনার মতামত লিখুন :