মোংলায় হামলার অভিযোগ তুলে বিএনপির মেয়র প্রার্থীর সংবাদ সম্মেলন

14

মোংলা প্রতিনিধি:মোংলা পোর্ট পৌরসভা নির্বাচনে বিএনপি প্রার্থীর নারীসহ একাধিক কর্মি ও সমর্থকের ওপর হামলার অভিযোগ উঠেছে। সোমবার (১১ জানুয়ারি) দুপুরে খোসেরডাঙ্গা এলাকায় এই হামলার ঘটনা ঘটে।
এতে ফাতেমা (৩৫), মুন (২৫), মরিয়ম (৩০) ও রাবেয়া (২৭) নামে চার নারী কর্মি গুরুতর আহত হন। এছাড়া রবিবার রাতে হামলার শিকার হন নুরুজ্জামান কালু (৪৫) নামে আরও এক কর্মি।

এঘটনার পরপরই দুপুরে বিএনপি সমর্থিত মেয়র প্রার্থী মোঃ জুলফিকার আলী নিজ বাসায় সংবাদ সম্মেলন করেন। এসময় তিনি সাংবাদিকদের বলেন, নির্বাচনের শুরু থেকেই প্রায় প্রতিদিনই তার কর্মিদের ওপর হামলা হচ্ছে। এমনকি তার দলের নেতাদের বাড়ি ভাংচুর করা হচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

এসব হামলা ও ভাংচুর তার প্রতিদ্বন্দ্বি মেয়র প্রার্থীর নির্দেশে হচ্ছে দাবি করেন বর্তমান এই মেয়র। তিনি এসব ঘটনার সুষ্ঠ বিচার না হলে নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়াবেন বলেও ইঙ্গিত দেন।

এদিকে হামলার খবর পেয়ে আহত চার নারী কর্মিকে দেখতে মেয়রের বাসায় যান পুলিশের সার্কেল এসপি (মোংলা) মোঃ আসিফ ইকবাল। তিনি এসময় সাংবাদিকদের বলেন, খবর পেয়ে এসেছি, তদন্ত করে আইনী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

উল্লেখ্য, এরআগে গত ২৯ ও ২৫ ডিসেম্বর দু’দফায় বিএনপির মেয়র প্রার্থী জুলফিকার আলীর কর্মিদের ওপর হামলা হয়।

আগামী ১৬ জানুয়ারী অনুষ্ঠিত হবে মোংলা পোর্ট পৌরসভার নির্বাচন। এতে বর্তমান মেয়র ও পৌর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক জুলফিকার আলীর প্রতিদ্বন্ধি প্রার্থী হিসেবে লড়ছেন পৌর আ’লীগের সভাপতি শেখ আব্দুর রহমান।