মৃত্যুপুরী যশোরে এক হাসপাতালেই ১৬ জনের মৃত্যু

এবিসি বাংলা ডেস্কএবিসি বাংলা ডেস্ক
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  06:59 PM, 05 July 2021
ফাইল ছবি

এবিসি নিউজ:যশোরে করোনার দাপুটি শক্তির লাগাম কোনভাবেই টেনে ধরা যাচ্ছে না। যশোরসহ খুলনা বিভাগই মৃত্যুপুরীতে পরিণত হয়েছে। চলমান সর্বাত্বক লকডাউনের মধ্যেও এই ভয়াবহরুপ দেখছেন মানুষ।

যদিও অভিযোগ রয়েছে এখনো পর্যন্ত যশোর শহরের প্রাণকেন্দ্র গুলোতে আইস-শৃঙ্খলা বাহিনীর তৎপরতা সীমাবদ্ধ রয়েছে। শহরের ষষ্টিতলাপাড়া, বেজপাড়া, বারান্দিপাড়া, খড়কি ও মিশনপাড়াসহ অধিকাংশ পাড়া মহল্লায় গভীর রাত পর্যন্ত মুদির দোকানপাট খোলা থাকছে। এসব দোকান ও তার আশপাশে জনসমাগম দেখা যাচ্ছে। লুকোচুরির মাধ্যমে চায়ের দোকানগুলোও খোলা থাকছে। সেখানে আড্ডা দিতে দেখা যাচ্ছে উঠতি বয়সের কিশোরসহ বিভিন্ন বয়সের মানুষকে। সচেতন মহল বলছেন, মানুষকে ঘরে আটকাতে না পারলে করোনা পরিস্থিতির উন্নতি ঘটনানো একেবারেই অসম্ভব।
এদিকে যশোর আড়াইশ বেড জেনারেল হাসপাতালেই গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত ও উপসর্গ নিয়ে মোট ১৬ জন মারা গেছেন। এরমধ্যে করোনা আক্রান্ত হয়ে ছয় জনের মৃত্যু হয়েছে। মৃতদের সবাই নারী এবং বয়স ৪৫ থেকে ৭৫ বছরের মধ্যে। মৃতদের মধ্যে একজন নড়াইলের লোহাগড়া, একজন ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার এবং অপর চার জন যশোরের বিভিন্ন উপজেলার বাসিন্দা।

বাকি ১০ জন করোনা উপসর্গ নিয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন বলে জানান যশোর জেনারেল হাসপাতালেল আবাসিক মেডিক্যাল অফিসার (আরএমও) ডা. আরিফ আহমেদ। তিনি আরও জানান, কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়া ছয় নারী যশোর জেনারেল হাসপাতালের করোনা ডেডিকেটেড ওয়ার্ডে (রেড জোনে) ভর্তি ছিলেন।

তিনি বলেন, যশোর জেনারেল হাসপাতালের রেড জোনে আজ মোট ভর্তি রয়েছেন ১২৬ জন এবং ইয়েলো জোনে আছেন ৮৬ রোগী।

এদিকে, আজ যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি) জিনোম সেন্টারে করোনার টেস্টে ১৮৬ জনের নমুনায় করোনা শনাক্ত হয়েছে। যশোরের ৪৪৫ জনের নমুনা পরীক্ষা করে এই ফলাফল পাওয়া যায়। শনাক্তের হার ৪১ দশমিক ৭৯।

মৃত্যু ও আক্রান্তের রেকর্ড প্রতিদিনই ভাঙছে। এ অবস্থায় শহরের পাড়া-মহল্লাগুলোতে র‌্যাবের পাশাপাশি সেনাবাহিনীর টহল দেয়া জরুরী-মনে করছেন সচেতন মহল।

খুলনা বিভাগ

আপনার মতামত লিখুন :