ভারত শাসিত কাশ্মীরের ১২০ বয়সী বৃদ্ধা নারী টিকা নিয়ে উৎসাহ দান

19

>>শ্রদ্ধা জানাতে বৃদ্ধার বাড়ি গিয়ে হাজির সেনা কর্মকর্তা
ভারত শাসিত জম্মু ও কাশ্মীরের প্রত্যন্ত অঞ্চলে করোনাভাইরাসের টিবা সম্পর্কে ভুল ধারণা রয়েছে মানুষরে মধ্যে। তবে সেই অঞ্চলেরই শতবর্ষী এক বৃদ্ধা গ্রহণ করেছেন করোনার টিকা। ১২০ বছরের বৃদ্ধা ঢোলি দেবী টিকা নিয়ে এলাকায় অন্যদের মধ্যে উৎসাহ জুগিয়েছেন। আর তার এই সাহসী পদক্ষেপের প্রশংসা করেছেন সেনাবাহিনীর উত্তরাঞ্চলের কমান্ডার লে. জেনারেল ওয়াই কে জোশি। তিনি ওই বৃদ্ধার সঙ্গে করতে শুক্রবার (২১ মে) তার বাড়িতেও হাজির হয়েছিলেন।

এনডিটিভি জানিয়েছে, ঢোলি দেবীর বাড়ি জম্মু ও কাশ্মীরের উধামপুর জেলার প্রত্যন্ত গার কাতিয়াস গ্রামে। সেখানে টিকা নিয়ে সাধারণ মানুষের মধ্যে ভুল ধারণা রয়েছে। সেখানেই গত ১৭ মে টিকা নিয়ে অন্যদেরকে টিকা নিতে উৎসাহ জোগালেন এই শতবর্ষী বৃদ্ধা। আরও খবর>>ভারতে ২৪ ঘন্টায় করোনায় ৪ হাজারের বেশি মৃত্যু

এক সেনা কর্মকর্তা বলেন, ‘করোনা মহামারির অন্ধকারে আশার আলো জ্বেলেছেন ঢোলি দেবী। তার টিকা নেয়ায় অনুপ্রাণিত হয়ে ওই গ্রামে এখন অনেকেই টিকা নিতে আসছেন।’

বৃদ্ধা ঢোলি দেবী গণমাধ্যমকে জানান, তার বয়স ১২০ বছর। তিনি টিকা নিয়েছেন এবং টিকা নেয়ার পর তার কোনো সমস্যা হয়নি।

তার নাতি চমন লাল বলেন, ‘এই বয়সেও টিকা নিয়ে তার কোনো সমস্যা হয়নি, এমনকি জ্বরও হয়নি। তিনি সবাইকে করোনা টিকা নিতে আহ্বান জানিয়েছেন।’

তার এই সাহসী উদ্যোগে খুশি হয়ে লে. জেনারেল জোশি তার বাড়ি গিয়ে সম্মান জানান। এসময় স্থানীয় লোকজন এবং সেনাবাহিনীর শীর্ষ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

সেনাবাহিনীর কর্মকর্তারা বলেন, বৃদ্ধা ঢোলি দেবী একা পুরো গ্রামের মানুষকে টিকা নিতে উৎসাহ জুগিয়েছেন। তার কারণে এই গ্রামে টিকা কর্মসূচি সফল হয়েছে। তিনি একজন জীবন্ত কিংবদন্তি। এই বয়সেও তিনি সুস্বাস্থ্যের অধিকারী, যেখানে অনেক তরুণ ইমিউনিটি ধরে রাখতে হিমশিম খান।

ওই অঞ্চেলে টিকা নিয়ে মানুষের মধ্যে ভুল ধারণা রয়েছে। এই ভুল ধারণা দূর করতে এবং টিকা কর্মসূচি সফল করতে সেনাবাহিনীকে বেশ বেগ পেতে হচ্ছে। মানুষকে টিকা নিতে তারা নানা পদক্ষেপও গ্রহণ করছে।