ড. কামালকে বলতেই হবে স্বাধীনতার ঘোষক জিয়াউর রহমান !

এবিসি বাংলা ডেস্কএবিসি বাংলা ডেস্ক
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  09:41 AM, 01 April 2019

>>> ফখরুলের ধমকের পরও চলে স্লোগান:নিবর থাকেন কামাল
এবিসি ডেস্ক:
বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানকে ‘স্বাধীনতার ঘোষক’ বলার জন্য গণফোরাম সভাপতি ও জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের আহ্বায়ক ড. কামাল হোসেনের ওপর চাপ প্রয়োগ করেছেন বিএনপির নেতাকর্মীরা।

রোববার সন্ধ্যায় জাতীয় প্রেস ক্লাবে ঐক্যফ্রন্ট আয়োজিত মহান স্বাধীনতা দিবসের আলোচনা সভায় ড. কামাল হোসেনের বক্তব্যের ৫ মিনিটের মাথায় দর্শক সারি থেকে বিএনপির নেতাকর্মীরা স্লোগান দিয়ে উঠেন, ‘স্বাধীনতার ঘোষক জিয়া- লও লও লও সালাম’। এতে কামাল হোসেন বক্তব্য থামিয়ে মাইকের সামনে দাঁড়িয়ে থাকেন।

এসময় দর্শক সারি থেকে বিএনপির এক নেতা বলেন, ‘জিয়াউর রহমান স্বাধীনতার ঘোষণা দিয়েছেন, একথা বলতে হবে’। এর সঙ্গে সঙ্গে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ওই নেতাকে ধমক দিয়ে থামিয়ে দেন। তবে এরপরও কয়েক সেকেন্ড স্লোগান চলে।

এর চার মিনিট পর গণফোরামের সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা মহসিন মন্টু ড. কামালের কাছে এসে তার কানে কিছু কথা বললে তিনি মন্টুকে ধমক দিয়ে বলেন, ‘কেন কথা বলছো, আমি যা বলেছি, তাই বলবো। এর বাইরে একটি কথাও বলবো না। আর আমি তো সকল বক্তার বক্তব্যেকে সমর্থন জানিয়েছি।’

তবে মন্টু ড. কামাল হোসেন কানে কী কথা বলেছেন তা শোনা যায়নি।

এদিকে কামাল হোসেনের বক্তব্য শেষ হওয়ার ১০-২০ সেকেন্ড আগে বিএনপির নেতাকর্মীরা জিয়াউর রহমানের নামে আবারও স্লোগান দিতে শুরু করেন। প্রায় ১০ মিনিট ধরে এই স্লোগান চলে।

সভায় কামাল হোসেন বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুর বিষয়ে বিতর্কের কোনো অবকাশ নেই। জাদুঘরে গেয়ে দেখেন, বঙ্গবন্ধু যে জাতির পিতা, ওনার নেতৃত্বে যে স্বাধীনতার সংগ্রাম হয়েছিল এবং দেশ স্বাধীন হয়েছিল সেই মর্যাদা নিয়ে উনি এখনও আছেন এবং থাকবেন। ওনাকে নিয়ে বিতর্ক থাকতে পারে না।’

জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের বিষয়ে তিনি বলেন, ঐক্য আছে। এটাকে আরও সুসংগঠিত করতে হবে। আর ঐক্যকে সুসংগঠিত করে এখান থেকে যেসব দাবিগুলো উঠেছে, সেগুলো আমরা অর্জন করবো।

ড. কামাল হোসেনের সভাপতিত্বে এবং বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুস সালামের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, জেএসডির সভাপতি আ স ম আবদুল রব, নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. মঈন খান, গণফোরামের নির্বাহী সভাপতি সুব্রত চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা মহসিন মন্টু প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

ঢাকা বিভাগ

আপনার মতামত লিখুন :