এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়নি ১১ হাজার শিক্ষার্থী

দেশের বাইরে এবার ৯টি কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হচ্ছে এসএসসি পরীক্ষা

ঢাকা অফিসঢাকা অফিস
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  05:07 PM, 14 November 2021
ছবি সংগৃহীত

বৈশ্বিক মহামারি করোনার কারণে অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের মতো বন্ধ ছিল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানও। অবশেষে মহামারির দাপট কমতে থাকায় দেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দিয়ে শুরু হয়ে গেছে পরীক্ষা কার্যক্রম।

তারই ধারাবাহিকতায়  দীর্ঘ প্রতিক্ষার পর এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু হয়েছে রোববার (১৪ নভেম্বর)। নয়টি সাধারণ বোর্ডের অধীনে পদার্থবিজ্ঞান (তত্ত্বীয়) বিষয়ের পরীক্ষা দিয়ে শুরু হয়েছে এবারের এসএসসি। সকাল ১০টা থেকে পরীক্ষা শুরু হয়ে সাড়ে ১১টা পর্যন্ত চলে। পরীক্ষার প্রথম দিন ঢাকা শিক্ষাবোর্ড, চট্টগ্রাম ও মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডে প্রায় ১১ হাজার পরীক্ষার্থী অংশ নেয়নি এই পরীক্ষা। এছাড়া আজ প্রথম দিনে পরীক্ষায় অসাধুপায় অবলম্বনের জন্য ১০ জনকে বহিষ্কার করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

ঢাকা শিক্ষাবোর্ড সূত্রে পাওয়া তথ্যমতে, এসএসসি পরীক্ষার প্রথম দিনে ঢাকা বোর্ডের অধীনে ৪২৩টি কেন্দ্রে এক লাখ ২৮ হাজার ৮০৭ জন অংশগ্রহণ করার কথা থাকলেও এদিন এক লাখ ২৭ হাজার ৯২৩ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করেছে। প্রথম দিনের পরীক্ষায় ৮৮৪ জন পরীক্ষার্থী কেন্দ্রে উপস্থিত হয়নি। তবে প্রথম দিনের পরীক্ষায় ঢাকা শিক্ষাবোর্ডে কোনো শিক্ষার্থী বা শিক্ষককে বহিষ্কার করা হয়নি।

এদিকে চট্টগ্রাম শিক্ষাবোর্ডে ২০৪টি পরীক্ষা কেন্দ্রে ২৮ হাজার ৩৩৭ জনের মধ্যে ২৮ হাজার ১৪৩ জন পরীক্ষার্থী উপস্থিত ছিল। এদিন ১৯৪ জন পরীক্ষা কেন্দ্র যায়নি বলে সংশ্লিষ্ট বোর্ড থেকে জানা গেছে।

অন্যদিকে মাদরাসা শিক্ষা বোর্ডে দুই লাখ ৬৯ হাজার ৩৭১ জন শিক্ষার্থীর মধ্যে উপস্থিত ছিল দুই লাখ ৫৯ হাজার ৪৭৭ জন। অনুপস্থিত ছিল নয় হাজার ৮৯৪ জন। অনুপস্থিতির হার ৩ দশমিক ৬৭ শতাংশ। এদিন অসাধুপন্থা অবলম্বন করায় ১০ জন শিক্ষার্থীকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

প্রতিবছর ফেব্রুয়ারি মাসের প্রথম সপ্তাহে এসএসসি পরীক্ষা শুরু হলেও করোনার কারণে এ বছর দীর্ঘ প্রায় নয় মাস অপেক্ষা করতে হয় শিক্ষার্থীদের। করোনা সংক্রমণ কমে আসলে পুনর্বিন্যাস করা সংক্ষিপ্ত সিলেবাসে এসএসসি পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় সরকার। দেশে করোনার প্রাদুর্ভাব দেখা দেওয়ার পর এই প্রথম কোনো পাবলিক পরীক্ষায় বসলো শিক্ষার্থীরা।

মহামারির কারণে এবারের এসএসসি পরীক্ষা হচ্ছে ভিন্ন আমেজে। স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করে কেন্দ্রে প্রবেশ করতে দেওয়া হচ্ছে পরীক্ষার্থীদের। মাস্ক এবং হ্যান্ড স্যানিটাইজারের ব্যবস্থা রাখা হয়েছে প্রতিটা কেন্দ্রে।

এবার মাধ্যমিক পরীক্ষায় মোট পরীক্ষার্থী ২২ লাখ ২৭ হাজার ১১৩ জন। গত বছর এ সংখ্যা ছিল ২০ লাখ ৪৭ হাজার ৭৭৯ জন। সে হিসাবে এবার পরীক্ষার্থীর সংখ্যা বেড়েছে এক লাখ ৭৯ হাজার ৩৩৪ জন। পরীক্ষার্থী বৃদ্ধির হার ৮ দশমিক ৭৬ শতাংশ।

এবার এসএসসি পরীক্ষায় ১৮ লাখ ৯৯৮ জন, দাখিলে তিন লাখ এক হাজার ৮৮৭ জন, এসএসসি (ভোকেশনাল) এক লাখ ২৪ হাজার ২২৮ জন পরীক্ষার্থী অংশ নিচ্ছে। বাংলাদেশ ছাড়াও আটটি দেশে ৪২৯ জন পরীক্ষার্থী এ পরীক্ষায় অংশ নিচ্ছে।

দেশের বাইরে এ বছর নয়টি কেন্দ্রে পরীক্ষা গ্রহণ করা হচ্ছে। এরমধ্যে রয়েছে জেদ্দা, রিয়াদ, ত্রিপলি, দোহা, আবুধাবি, দুবাই, বাহরাইন, ওমানের সাহাম ও গ্রিসের এথেন্স।

ঢাকা বিভাগ

আপনার মতামত লিখুন :