এই শোনো আজ লক্ষ্মীপুজো

এবিসি বাংলা ডেস্কএবিসি বাংলা ডেস্ক
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  12:44 PM, 20 October 2021

—-“এই শোন , আজ লক্ষ্মীপুজো

। মনে আছে তো ? মায়ের হাতে হাতে কাজ করবি। টিশার্ট , কেপ্রি , হাফপ্যান্ট এসব একদম নয় আজ। এবেলা স্নান করে চুড়িদার পরবি আর বিকেলে লালপাড় গাদোয়ালটা পরিস। খুব মানাবে তোকে। লোকজন আসবে। হাল্কা গয়না পরিস। শাঁখা পলা সিঁদুর মনে করে পরিস। সুন্দর করে সাজবি। নতুন বিয়ে হয়েছে আমাদের। সবাই তোকেই দেখবে। আর শোন , একবাড়ি লোকজনের মধ্যে একদম তুই-তুই করবি না। তুমি করে বলবি। নাহলে কিন্তু নিন্দে হবে। এটা মাথায় রাখিস। ”

—-“আচ্ছা বাবা সব করবো , আগে আমার বেডটি টা তো এনে দে !! তুই জানিস সকালে চা না খেলে আমি একদম এনার্জি পাই না !”

—-“হ্যাঁ এইতো নিয়ে আসছি দু’কাপ চা।”

—-“শাড়ির কুঁচি আর আঁচল ধরে দিবি। গয়না পরবো হেল্প করবি। মা বলেছে নারকেল নাড়ুটা আমাকে বানাতে , হেল্প করবি। আমার একার দ্বারা হবে না। অবশ্য পায়েস আর আল্পনাটা আমি একাই ম্যানেজ করে নিতে পারবো।”

—-“যো হুকুম ম্যাডাম ! যা আপনার আদেশ। চা তো শেষ , এবার ল্যাদ খাওয়া বন্ধ করে বিছানাটা দয়া করে ছাড়ুন। আমি গুছিয়ে দিই। ইস সোফাটা কি কান্ড করে রেখেছিস রে !! ওটাও তো গোছাতে হবে ! ওখানেও তোর ম্যাগাজিন কুর্তি স্কার্ফ ব্যাগ সানগ্লাস ক্ল্যাচ হ্যাঙ্কি …. ইস !! তুই আর শোধরাবি না !!”

—-“কি করে শোধরাবো তোর মতো একটা সুইটু বাবু থাকলে ? কি করে , বল !!”

—-“ছাড় , সাত সকালে আর বাটারিং করতে হবে না। ছাড় বলছি , প্রচুর কাজ করতে হবে। চাপ আছে। লোকজন আসবে।”

—“আমি ওয়াশরুমে যাচ্ছি। ফ্রেশ হয়ে এসে আমি পুজোর কাজে হাত লাগাবো। তুই ততক্ষণ এদিকটা সেরে নে। আর শোন , ফুল আনতে যাবি যখন আমার জন্য জুঁই ফুলের মালা আনিস তো ! সন্ধেবেলা খোপায় লাগাবো।”

—-“যো হুকুম ম্যাডাম। এবার যা আর দেরী করিসনা অনেক কাজ বাকি।”

—-“ওক্কে ওক্কে স্যার , আই অ্যাম গোয়িং…..”

#লক্ষ্মী_নারায়নের_গেরস্থালি
কলমে_ #ব্রতশ্রী_বসু

আপনার মতামত লিখুন :