অনলাইন ও আইপিটিভি তদাকরি করতে হচ্ছে আলাদা উইং-তথ্যমন্ত্রী

22

এবিসি ডেস্ক:আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, অনলাইন ও আইপিটিভিসহ অন্য সম্প্রচার মাধ্যমে যা সম্প্রচার হয় সেগুলো দেখার জন্য একটা আলাদা উইং করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

আজ মঙ্গলবার(১৬ মার্চ) দুপুরে সচিবালয়ে মন্ত্রণালয়ের সম্মেলনকক্ষে তথ্য মন্ত্রণালয়ের নাম পরিবর্তন বিষয়ে এক প্রেস ফিংয়ে তিনি একথা বলেন। এ সময় ডা. মুরাদ হাসান, তথ্যসচিব খাজা মিয়া উপস্থিত ছিলেন।

মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেন, তথ্য মন্ত্রণালয়ের নাম পরিবর্তন করে গত ১৫ মার্চ প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। তথ্য মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে আমরা নাম পরিবর্তনের জন্য কেবিনেট ডিভিশনকে লিখেছিলাম। কেবিনেট ডিভিশন সেটি পর্যালোচনা করে প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদন নিয়ে রাষ্ট্রপতির কাছে পাঠিয়েছেন। রাষ্ট্রপতির অনুমোদনের পর আবার কেবিনেট ডিভিশন হয়ে গেজেট নোটিফিকেশন হয়েছে। এজন্য প্রধানমন্ত্রী ও রাষ্ট্রপতিকে ধন্যবাদ জানাই।

এদিকে করোনা পরিস্থিতিতে তিনি বলেন, এখন আমাদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা প্রয়োজন এবং যতদূর সম্ভব জনসভা এড়ানো প্রয়োজন। এগুলো করলেই করোনা অনেক নিয়ন্ত্রণে চলে আসবে।

হাছান মাহমুদ বলেন, আমাদের দেশে তথ্য মন্ত্রণালয় নাম থাকার কারণে নানা বিভ্রান্তিও তৈরি হয়। তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি নামে আরো একটি মন্ত্রণালয় রয়েছে। এতে দেখা যায় তাদের চিঠি আমাদের কাছে আসে এবং আমাদের চিঠি তাদের কাছে চলে যায়, এরকম ঘটনা বহুবার ঘটেছে।

তথ্য ও সম্প্রচার নিয়ে আলাদা দু’টি বিভাগ তৈরি হবে কিনা জানতে চাইলে হাছান মাহমুদ বলেন, না, আলাদা বিভাগের প্রয়োজন নেই। তবে আমরা আমাদের মন্ত্রণালয়ের মধ্যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ অনলাইনে আরো নিবিড়ভাবে সেবা দিতে ও কাজ করতে পারি সে লক্ষ্যে আমাদের একটা আলাদা উইং করা হচ্ছে। আগে আলাদা কোনো সেল ছিল না। এখন আমাদের মিডিয়া উইং সেটা দেখে। এজন্য সেখানে আলাদা আরো একটা উইং করার পরিকল্পনা নিয়েছি।

তিনি আরো বলেন, আপাতত আমাদের যে জনবল আছে সে জনবল দিয়েই সে উইংটি শুরু করবো। পরবর্তীসময়ে আমরা জনপ্রশাসনে লিখবো এখানে আরো জনবল সংযোজন করা জন্য।